শনিবার, ০৮ মে ২০২১
Logo
করোনায় পহেলা বৈশাখ : মৃৎশিল্পীদের মাথায় হাত

করোনায় পহেলা বৈশাখ : মৃৎশিল্পীদের মাথায় হাত

করোনাভাইরাসের কারণে বৈশাখী মেলা করতে পাচ্ছে না। শখের হাঁড়িতে লকডাউনের কারণে রং তেমন করছে না। লাখ লাখ টাকার মাটির তৈরি শখের জিনিস বাড়িতে রাখা আছে। তা নিয়ে আর যাওয়া হবেনা বাংলা নববর্ষের মেলায়।


তবে ভোরের প্রথম আলো রাঙিয়ে দেবে নতুন স্বপ্ন, প্রত্যাশা আর সম্ভাবনাকে। স্বাভাবিক ভাবেই সেই স্বপ্ন, করোনাভাইরাস মুক্ত নতুন বিশ্ব, নতুন বাংলাদেশের প্রত্যাশা আজ সবারই। বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বাঙালিরা করোনা মহামারি থেকে সহসা মুক্তির প্রত্যাশা নিয়েই নতুন বছরকে বরণ করবে কোনও আনুষ্ঠানিকতা ছাড়াই।


পয়লা বৈশাখে বর্ণিল উৎসবে রঙিন হবার কথা। সবখানে থাকার কথা মঙ্গল শোভাযাত্রা নিয়ে বর্ষবরণের নানা আয়োজন। কিন্তু বাংলাদেশসহ বিশ্বে এখন চলছে করোনাকাল। এখন চলছে অনিশ্চিত সময়। তাই এবছরও মনে হয় আনুষ্ঠানিকতা ছাড়াই নতুন বর্ষকে বরণ করে নেয়া হবে।

 

ঐতিহ্যবাহী রমণার বটমূলে হচ্ছেনা ছায়ানটের বর্ষবরণ অনুষ্ঠান। তবে এবারে পহেলা বৈশাখকে একটু ভিন্নভাবে স্বাগত জানাতে অধীর আগ্রহে থাকলেও সকল আশায় গুড়ে বালি হয়েছে মৃত শিল্পীদের। যাদের সারা বছর অপেক্ষায় কাটে বর্ষবরণের মাটির হাড়ি পাতিল বিভিন্ন খেলনা তৈজসপাত্র বানাবার চিন্তায়। আজ সেই হাত কোন কিছু আঁকতে চাইছেনা, হীম হয়ে আসছে সকল জল্পনা কল্পনা।


নতুন করে বাসা বেধেছে ছেলেপুলে নিয়ে কি খেয়ে বেঁচে থাকব এমন আশংকায়। তাদের দাবি এই মহামারি কেটে যাক, নতুনভাবে দেশে জেগে উঠুক আগের মত সেই আনন্দভরা বৈশাখ।

সংযুক্ত থাকুন