কুষ্টিয়ায় দুই মাদ্রাসাছাত্রীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে মামলা

0
46


কুষ্টিয়া সংবাদদাতা
কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে দুই মাদ্রাসাছাত্রীকে এক মাস ধরে যৌন নিপীড়নে অভিযুক্ত হাজী মো. শহিদুল ইসলাম নামে এক বাড়িওয়ালার বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। হত্যার হুমকি দিয়ে গত এক মাস ধরে তাদের যৌন নিপীড়ন করা হয়। তবে যৌন নিপীড়নের বিষয়টি ফাঁস হওয়ার পর থেকে বাড়ির মালিক আত্মগোপন করেছেন। গত শুক্রবার রাতে কুমারখালী থানায় মামলাটি দায়ের করা হয়েছে। মাদ্রাসার একটি কক্ষে বাড়ির মালিক ও তার স্ত্রী থাকেন। মোবাইল চার্জ দিতে শিক্ষার্থীরা প্রায়ই ওই কক্ষে যায়। বাড়ির মালিকের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তার কক্ষে যাওয়ার সুযোগ নিয়ে চতুর্থ শ্রেণির এক ছাত্রীকে মাসখানেক আগে তিনি যৌন নিপীড়ন করেন। এরপর থেকে হত্যার হুমকি দিয়ে ওই ছাত্রীকে নিয়মিত যৌন নিপীড়ন করে আসছিলেন তিনি। গত বুধবার হেফজ পড়ুয়া আরেক ছাত্রী মোবাইল চার্জ দিতে গিয়ে তার অপকর্ম দেখে ফেলে। তাকেও হত্যার হুমকি দিয়ে যৌন নিপীড়ন করা হয়। নির্যাতনের শিকার ওই মাদ্রাসার চতুর্থ শ্রেণির এক শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে শ্লীলতাহানির অভিযোগে মামলাটি দায়ের করেন।

Comment using Facebook