শৈলকুপায় স্থায়ীভাবে ব্রীজ নির্মাণের দাবি

0
137

শৈলকুপা সংবাদদাতা

ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার ১ নং ত্রিবেনী ইউনিয়ন ও ৩ নং দিগনগর ইউনিয়ের বাসিন্দাদের একটি সেতুর অভাবে দীর্ঘদিন ধরে দুই পাড়ের জনপদের যোগাযোগ বিছিন্ন হয়ে পড়ে। স্কুল কলেজে যাতায়াত ও কাঁচামাল বিক্রয়ের জন্য ঘুরতে হতো দীর্ঘ ৫-৬ কিলোমিটারের পথ। তাই একটি সেতু নির্মাণের দাবি ছিল দুই গ্রামের বাসিন্দাদের।

কিন্তু দীর্ঘদিনেও তাদের এ দাবি পূরণ হয়নি। যার ফলশ্রুতিতে দুই ইউনিয়েনের বাসিন্দাদের যোগাযোগ ব্যবস্থাকে সহজ করে তোলার লক্ষ্যে শৈলকুপার শ্রীরামপুর গ্রামের যুব সমাজের উদ্যোগে ও দুই পাড়ের বাসিন্দারা মিলে বাঁশ ও কাঠ দিয়ে প্রায় ৪ লক্ষাধিক টাকা খরজে তৈরি করেছে দীর্ঘ একটি সেতু।

কিন্তু প্রতিবছর বর্ষায় ব্রীজটি নষ্ট হওয়ায় ভোগান্তিতে পড়ে তারা। তাদের দাবি যেন স্থায়ীভাবে যদি নির্মাণ হয় একটি ব্রীজ। সেতুটি কেন্দ্র করে গড়ে উঠেছে একটি দর্শনীয় স্থান প্রতিনিয়ত বিভিন্ন গ্রামে থেকে এবং পাশেই অবস্থিত ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা জায়গাটি দেখতে ভিড় জমাই। এই বিষয়ে শ্রীরামপুরবাসী জানান, নদীর উপাড়ে আমাদের চাষাবাদ রয়েছে এবং দিগনগর ইউনিয়নের রতনপুর গ্রামের চাষাবাদ রয়েছে এইপাড়ে চাষাবাদ ও যোগাযোগের জন্য আমাদের ৫-৬ কিলোমিটার পথ ঘুরে যেত হতো বা নদী সাঁতরে যেতে হতো।

ব্রীজটির নির্মাণের ফলে আমদের সাময়িক সুবিধা হলেও প্রায়ই ভেঙে যায় যায়। রতনপুরবাসী জানান, আমাদের নদীর ওইপাশে শেখপাড়া বাজার, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, শেখপাড়া দুঃখী মাহমুদ কলেজ সহ নানা প্রয়োজনে প্রতিনিয়ত যাতায়াত করা লাগে। কাঠের ব্রীজটির ফলে আমরা সহজে গন্তব্যে পৌচ্ছাতে পারছি। সরকারের কাছে দাবি জানাই স্থায়ীভাবে ব্রীজটি নির্মাণের।

Comment using Facebook