ফকিরহাটে ব্যবসায়ী ও ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি মামলা

0
79

ফকিরহাট (বাগেরহাট) সংবাদদাতা

বাগেরহাটের ফকিরহাটে দুই অসাধু ব্যবসায়ী ও এক ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির মামলা দায়ের হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২১ এপ্রিল) ফকিরহাট মডেল থানায় ভুক্তভোগী বাদী হয়ে এই মামলা দায়ের করেন।

মামলার বিবরণীতে জানা যায়, ফকিরহাট সদর ইউনিয়নের সাতসৈয়া গ্রামের কাজী সুলতানের ছেলে হোটেল ব্যবসায়ী কাজী ইয়াছিন, একই ইউনিয়নের আট্রাকী গ্রামের খোকা শেখের ছেলে ইট বালি ব্যবসায়ী শেখ সৈয়দ আলী এবং একই গ্রামের ইউপি সদস্য মৃত শেখ বাড়ৈ মিয়ার ছেলে শহিদুল ইসলাম একত্রে বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল গফফার মিয়ার ছেলে তোরাব মিয়া একটি মিথ্যা মামলায় শ্রেণিভুক্ত হলে সেই সুযোগকে কাজে লাগিয়ে বাদীর বাড়িতে যেয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধার থেকে ৫ লক্ষ টাকার বিনিময়ে মামলা থেকে রেহাই পাইয়ে দেওয়ার কথা বলেন। অন্যথায় এ টাকা না দিলে আরও বিভিন্ন মামলাসহ ভুক্তভোগীর ছেলেকে পুলিশ ও র‌্যাব দিয়ে গ্রেফতার করিয়ে তাদের দিয়ে প্রচন্ড মারপিট করানোর হুমকি প্রদান করে। ছেলেকে বাচাতে ভুক্তভোগী বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল গফফার মিয়া বাদী একপর্যায়ে ভীত হয়ে গত ইং ২৪-৪-২০২০ তারিখ রাত আনুমানিক ৯ টার দিকে বাদীর নিজ বাড়িতে বসে কয়েকজন স্বাক্ষীর উপ¯িথতিতে আসামীদের হাতে চার লক্ষ বিশ হাজার টাকা চাঁদা বাবদ প্রদান করে। এদিকে টাকা নেওয়ার পরেই উক্ত মামলার আসামীগন চোখ পাল্টি দিয়ে প্রতিশ্রুতি মোতাবেক বাদির ছেলেকে জামিনের জন্য কোন সহযোগিতা না করে উল্টো বিভিন্ন ভাবে হয়রানি করতে থাকে। এলাকার সচেতন মহলের দাবি অতি দ্রুত এই তিন ভয়ংকর প্রতারককে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হোক।

Comment using Facebook