নওয়াপাড়া মাছ ও মাংসের বাজারে ডিজিটাল কারচুপি

0
40

স্টাফ রিপোর্টার

শিল্প বানিজ্য ও বন্দর নগরী নওয়াপাড়ার মাছ ও মাংসের বাজারে চলছে ডিজিটাল কারচুপি। কতিপয় কিছু অসাধু মাছ ও মাংস ব্যবসায়ী তাদের মাছ ও মাংসের ওজন পরিমাপের ডিজিটাল মেশিনে ফ্যার সেট করে দেদারছে বিক্রি করছে তাদের মাছ ও মাংস। অসাধু ব্যবসায়ীদের মধ্যে কেউ কেউ মাছ ও মাংসের দাম বলছে এক আর ডিজিটাল পাল্লায় দর সেট করছে অন্যরকম। যা ক্রেতা সাধারণ সরল মনে ক্রয় করে প্রতিনিয়ত প্রতারিত হচ্ছে।

এমন অভিযোগের পর নওয়াপাড়া মাছ ও মাংসের দোকানগুলোতে গিয়ে এ অভিযোগের সত্যতা মিলেছে। এক অসাধু মাছ ব্যবসায়ীর নিকট ক্রেতা হিসেবে মাছের দর জানতে চাইলে প্রতি কেজি মাছের দর ৩শ টাকা বললেও তাদের ডিজিটাল মেশিনে ৩.৫ সংখ্যা সেট করে মাছটি ওজন করার পর মাছটির মূল্য পরিশোধের জন্য জানলো।

অসাধু সেই ব্যবসায়ীর কারচুপি ধরা পড়লে তাকে এ ব্যাপারে জিজ্ঞাসা করলে তিনি মূর্খ মানুষ, ডিজিটাল মেশিন ভালোভাবে পরিচালনা করতে পারেন না বলে জানান এবং ভুল হয়েছে বলে এ প্রতিবেদককে জানান।

এ ব্যাপারে সাধারণ ক্রেতাদের মধ্যে একজন ক্রেতা জানান, মাছ-মাংস কিনতে গেলে তারা যে মূল্য ও ওজন পরিমাপ করে দেয় তা তারা সরল মনে ক্রয় করে নিয়ে যায়। এ বিষয়ে সে খেয়াল করেননি। এরপর এক ক্রেতাকে জিজ্ঞাসা করলে তিনি জানান, কয়েকদিন আগে এক কেজি মাংস কিনে বাড়ি যাওয়ার পথে তার মনে সন্দেহ হলে তিনি মাংসটি আবারো একটি দোকানে ওজন করেন। তখন তিনি ওজনে ৭০ গ্রাম কম ওজন পেয়ে পুনরায় ওই দোকানে গিয়ে বিষয়টি জিজ্ঞাসা করলে ওই দোকানদার ভুল স্বীকার করে তার মাংসের ওজন সঠিক ভাবে পরিমাপ করে দেন।

এ ব্যাপারে নওয়াপাড়া মাছ ও মাংসের অন্যান্য ব্যবসায়ী ও ক্রেতা সাধারণ ক্ষোভ জানিয়ে বলেন, অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য সংশ্লিস্ট কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

Comment using Facebook