দক্ষিণ আফ্রিকার সাথে বাজে হার বাংলাদেশের

0
27

ক্রীড়া ডেস্ক

জায়গা বানিয়ে ড্রাইভ করতে গিয়ে আউট মুশফিকুর রহিম। সুইপ করার চেষ্টায় উইকেট বিলিয়ে দিলেন মুমিনুল হক। স্লগ সুইপে উড়িয়ে মেরে বিদায় ইয়াসির আলির, ক্রিজ ছেড়ে বেরিয়ে স্টাম্পড লিটন দাস। ¯্রফে একের পর এক উইকেটের পতন নয়, আত্মসমর্পণের একেকটি দলিল যেন। যেখানে লেখা আছে, লড়াই না করেই মাথা নিচু করে পলায়ন। দক্ষিণ আফ্রিকার জয় নিশ্চিত হয়ে গিয়েছিল আগেই।

দেখার ছিল, চতুর্থ দিনে লড়াই কতটা করতে পারে বাংলাদেশ। সেটুকুও দেখা হলো না। চোখের পলকেই যেন বালির বাঁধের মতো ভেঙে পড়ল ইনিংস।

দিনের প্রথম ঘণ্টায় ১৫ ওভারের কম সময়ের মধ্যেই খেলা শেষ! পোর্ট এলিজাবেথ টেস্টের চতুর্থ দিনে ৮০ রানে অলআউট বাংলাদেশ। ৩৩২ রানের জয়ে ২-০ ব্যবধানে সিরিজ জয় দক্ষিণ আফ্রিকার। আগের টেস্টের চতুর্থ ইনিংসের চেয়ে উন্নতির দাবি অবশ্য করতেই পারে বাংলাদেশ। ডারবানে তো ১৯ ওভারে ৫৩ রানে গুটিয়ে গিয়েছিল দল। এবার সাড়ে চার ওভার বেশি খেলে ২৭ রান বেশি, উন্নতি বটে! ২০০৭ সালের শ্রীলঙ্কা সফরের পর এই প্রথম টানা দুই টেস্টে একশর নিচে গুটিয়ে গেল বাংলাদেশ। দক্ষিণ আফ্রিকার জন্য ব্যাপারটি ঠিক উল্টো। টানা দুই টেস্টে তারা গড়েছে গৌরবময় কীর্তি।

ডারবানের চতুর্থ ইনিংসের মতো এখানেও ¯্রফে দুই বোলার মিলেই গুঁড়িয়ে দিয়েছেন বাংলাদেশকে। সেই টেস্টের মতো এবারও কেশভ মহারাজের শিকার ৭ উইকেট, সাইমন হার্মারের ৩টি।

Comment using Facebook