শরণখোলায় ডায়রিয়া ও নিউমোনিয়ার প্রকোপ

0
36

বাগেরহাট সংবাদদাতা

বাগেরহাটের শরণখোলায় ডায়রিয়া ও নিউমোনিয়ার প্রকোপ বেড়েছে। আক্রান্তদের মধ্যে অধিকাংশই শিশু। বর্তমানে ১০ শিশু নিউমোনিয়ায় এবং সাত শিশু ডায়রিয়া আক্রান্ত হয়ে শরণখোলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিচ্ছে।

সদর উপজেলার মরিয়া নেছা বলেন, আমার ও মেয়ে জায়মা খাতুনের হঠাৎ পাতলা পায়খানা শুরু হলে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছি। আমরা এখন প্রায় সুস্থ হয়ে উঠেছি।

শরণখোলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিক্যাল অফিসার ববি সাহা জানান, শীত শেষে গরম পড়তে শুরু করলে ভাইরাল ডায়রিয়া রোগটা বেশি হয়। এছাড়া কোভিডের কারণে মানুষ দীর্ঘদিন ঘরের বাইরে যেতে পারেননি। এখন লোকজন বাইরে যাচ্ছেন। বাইরের খাবার খাচ্ছেন। যে কারণে ডায়রিয়ায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে।

গরম শুরুর সময়ে ডায়রিয়ার প্রকোপটা সাধারণত বাড়ে। তিনি জানান, হাসপাতালে স্যালাইন থেকে শুরু করে অন্যান্য ওষুধপত্র পর্যাপ্ত পরিমাণ রয়েছে। ডায়রিয়া আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি ১২ জন রোগীর মধ্যে সাত জন শিশু রয়েছে। সরেজমিনে হাসপাতালগুলোতে দেখা যায়, ডায়রিয়া আক্রান্ত রোগী বেড়ে যাওয়ায় হাসপাতালে বেড না পেয়ে মেঝেতে বিছানা করে তাদের চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত ১০ শিশু হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছে। হাসপাতালে বেড সঙ্কট থাকায় অনেকে মেঝেতে থেকে চিকিৎসা নিচ্ছে। রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পেলে চিকিৎসা সেবা ব্যাহত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।

তিনি জানান, গত এক সপ্তাহে নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে ১৯ শিশু এবং ডায়রিয়ায় ২৫ শিশু শরণখোলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়। উপকূলীয় এ এলাকায় বিশুদ্ধ পানি সঙ্কটে ডায়রিয়া এবং আবহাওয়া পরিবর্তনজনিত কারণে নিউমোনিয়ার প্রকোপ দেখা দিয়েছে। প্রতিদিন ডায়রিয়া আক্রান্ত রোগী হাসপাতালে আসছেন। আক্রান্তদের মধ্যে অধিকাংশই নারী ও শিশু।

Comment using Facebook