কেশবপুরে জোরপূর্বক মাদরাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ

0
94

কেশবপুর সংবাদদাতা

কেশবপুর উপজেলার ৩নং মজিদপুর ইউনিয়নের হিজলতলা গ্রামের হাফিজিয়া মাদ্রাসার ১০ বছরের এক ছাত্রীকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে এফাজতুল্লা সরদার ওরফে আলফাজ (৫০) বলে অভিযোগ উঠেছে। রবিবার দুপুরে হিজলতলা কওয়ামী ও হাফিজিয়া মাদ্রাসার ১০ বছরের ছাত্রী দুপুরের খাবার খেতে বাড়ি যায়।

প্রতিদিনের ন্যায় সে বাড়ি থেকে দুপুরের খাবার খেয়ে রাতের খাবার সাথে নিয়ে গ্রামের মেঠো পথে মাদ্রাসায় ফিরছিল। এসময় হিজলতলা গ্রামের মৃত মোকাম আলী সরদারের পুত্র এফাজতুল্লা সরদার ওরফে আফাজ তাকে কাছে ডেকে নিয়ে গামছা দিয়ে মুখ বেধে পার্শে বাগানের ভিতর নিয়ে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে।

এ ব্যাপারে তার দাদা রজব আলী সরদার জানান, মেয়েটি ঘটনার পরে কাউকে কিছু না বলে মাদ্রাসায় যেয়ে তার হুজুরকে বিষয়টি জানায়। মাদ্রাসার হুজুর মেয়েটিকে সোমবার সকালে তার বাড়িতে খেতে আসতে দেয়নি। সে সকালে খাবার খেতে না আসায় তার মাকে সাথে নিয়ে মাদ্রাসায় গেলে এ সময়ে ছাত্রী তার সাথে ঘটে যাওয়া সকল ঘটনা খুলে বলে। এর পর হতে লম্পট এফাজতুল্লা সরদার ওরফে আফাজকে খুজে পাওয়া যায়নি সে পালিয়ে গেছে। এফাজতুল্লা সরদার ওরফে আলফাজের পুত্র আবু কালাম এই প্রতিনিধিকে জানিয়েছে তার পিতা গত রবিবার রাতের পর আর বাড়িতে আসেনি।

ছাত্রীর দাদা বলেন তার বিরুদ্ধে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নিকট অভিযোগ করা হবে। এ রিপোট লেখা পর্যন্ত অভিযোগের প্রস্তুতি চলছিল বলে ছাত্রীর দাদা রজব আলী সরদার জানান।

Comment using Facebook