আজ শনিবার ২৪শে আগস্ট, ২০১৯ ইং রাত ২:১০

add

সিপাই থেকে ওসি হয়ে শতকোটি টাকার পাহাড়! দুদকে অভিযোগ

স্টাফ ডেস্ক
প্রকাশিত: জুন ১৫, ২০১৯ সময় : ১৬:৩৭:৪৩



সাকিরুল কবীর রিটন, যশোর :
সামান্য কৃষক পরিবার থেকে পুলিশের সিপাহিতে ভর্তি হয়ে প্রমোশন নিয়ে ওসি হওয়া মাগুরার মহম্মদপুরের ওমেদপুর গ্রামের সাইরুল ইসলামের সম্পদের পাহাড় কোথা থেকে এলো? রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় ৮ তলা ভবনের মালিক হয়েছেন চট্টগ্রামের বোয়ালখালী থানার বর্তমান ওসি সাইরুল ইসলাম। ভবনটির আনুমানিক মূল্য ১১ কোটি টাকা। কনস্টেবল থেকে পদোন্নতি পেয়ে ওসি হওয়া এই পুলিশ কর্মকর্তা নামে-বেনামে সম্পদের পাহাড় গড়েছেন। একাধিক গণমাধ্যমের অনুসন্ধানে পাওয়া গেছে ওসি সাইরুলের সম্পদের ভান্ডার। জানা গেছে, রাজধানীর অভিজাত এলাকা হিসেবে খ্যাত বসুন্ধরা আবাসিকের এম ব্লকে ৪২১৪ নম্বর প্লটে ৪ কাঠা জমি কিনেছেন সাইরুল ইসলাম। উক্ত জমিতে তিনি নির্মাণ করেছেন ৮ তলা সুরম্য অট্টালিকা। ভবনটির নির্মাণকাজ শেষ হয়েছে সম্প্রতি। নজরদারির সুবিধার্থে ভবনটির বাইরে স্থাপন করা হয়েছে সিসিটিভি ক্যামেরা। ভবনটির বর্তমান বাজার মূল্য সম্পর্কে একটি আবাসন প্রতিষ্ঠানের নির্বাহী পরিচালক বলেন, ‘৪ কাঠা জমির উপর ৮ তলা ভবন করা হলে এটির মোট স্পেস দাঁড়াবে প্রায় ১৮ হাজার ৪৩২ বর্গফুট। এটি নির্মাণে ব্যয় হতে পারে প্রায় ৩ কোটি ৬৮ লাখ ৬৪ হাজার টাকা। বর্তমানে এটির বাজার মূল্য হতে পারে প্রায় ১১ কোটি ৫ লাখ ৯২ হাজার টাকা।’ অনুসন্ধানে আরো জানা গেছে, যশোরের প্রাণকেন্দ্র কোতোয়ালী থানার সিটি কলেজ পাড়ায় ওসি সাইরুল ইসলামের রয়েছে ৬ দশমিক ৬০ শতক জমি। যশোরের একজন জ্যেষ্ঠ সংবাদকর্মী সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, সিটি কলেজের সামনেই মনিহার সিনেমা হল। সেখানে আগে বাসস্ট্যান্ড থাকলেও এখন নেই। তবে রাতের বেলা দূরপাল্লার বাসগুলো মনিহার থেকেই ছাড়ে। ওই এলাকায় জমির প্রচুর দাম। সিটি কলেজ পাড়ায় প্রতি শতক জমির দাম সর্বনিম্ন ৭ লাখ টাকা; রাস্তার পাশে বা একটু ভালো জায়গায় হলে জমির দাম প্রতি শতক ১০ লাখ টাকা। সে হিসেবে ওসি সাইরুলের উক্ত জমির মূল্য হতে পারে ৬৬ লাখ টাকা। ওসি সাইরুল ইসলামের ছেলে মো. সৌমিক হাসানকে যুক্তরাজ্যের ইউনিভার্সিটি অফ হার্টফোরশায়ারে নিজ খরচে পড়ালেখা করাচ্ছেন। ২০১৫ সাল থেকে লন্ডন, তুরস্ক, ইটালি, মালয়েশিয়া, ফ্রান্স, সুইজারল্যান্ডসহ বিভিন্ন দেশে ভ্রমন করেছেন সৌমিক। যা তিনি নিজের ফেইসবুক পাতায় শেয়ার করেছেন। ১৯৮৬ সালে বাংলাদেশ পুলিশে কনস্টেবল পদে যোগ দেন সাইরুল ইসলাম। মাগুরা জেলার মোহাম্মদপুর থানার ওমেদপুর গ্রামের সাধারণ কৃষক শেখ আবদুল আলেক ও শেখ সবুরন নেছার সন্তান তিনি। আর্থিকভাবে অসচ্ছল ছিলেন তারা। যার কারণে পুলিশের কনস্টেবল পদে যোগ দিয়ে পরিবারের হাল ধরেন সাইরুল। পরে পদোন্নতি পেয়ে চট্টগ্রামের চান্দগাঁও, বায়েজিদ বোস্তামী ও মিরসরাই থানায় ওসি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন সাইরুল। চাকরি জীবনে তিনি জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে যাননি। শুধুমাত্র পুলিশে চাকরি করে ওসি সাইরুল সম্পদের পাহাড় গড়েছেন বলে অভিযোগ পেয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। সম্প্রতি দুদকে জমা হওয়া আয়শা আকতার কাকলী নামের চান্দগাঁওয়ের এক বাসিন্দার অভিযোগ থেকে জানা যায়, সাইরুলের স্ত্রী সৈয়দ তাসলিমা ইসলাম ব্যক্তিগত চালকসহ ব্যবহার করেন দামি প্রাইভেট কার। ওসি সাইরুলসহ পরিবারের সদস্যরা বহুবার বিভিন্ন উন্নত দেশে সফর করেছেন। এত বিলাসী জীবনযাপনের পরও আয়কর বিবরণীতে বছরে মাত্র আড়াই লাখ টাকা পারিবারিক ব্যয় দেখিয়েছেন ওসি সাইরুল ইসলাম। এদিকে দুদকের কাছে তথ্য আছে, আয়কর বিবরণীতে ৫০ ভরি স্বর্ণালংকার ও নগদ ১১ লাখ ২৩ হাজার ৯৫৮ টাকা আছে বলে তথ্য দিয়েছেন ওসি সাইরুল। তার সম্পদ স্ত্রী ও নিকটাত্মীয়দের কাছেও রয়েছে। স্ত্রী সৈয়দা তাসলিমা ইসলামের নামে ঢাকায় কোটি টাকা দামের ফ্ল্যাট আছে। সেখানে স্ত্রী-সন্তানরা বসবাস করেন। বিলাসবহুল উক্ত ফ্ল্যাটে রয়েছে শীতাতপ নিয়ন্ত্রণ যন্ত্রসহ দামি আসবাবপত্র। বনানীতেও একটি বহুতল ভবন আছে। সাইরুলের সম্পদ ভাই সাইফুল ইসলামের নামেও রয়েছে। নামে-বেনামে অন্তত ৮০টি কাভার্ড ভ্যান রয়েছে ওসি সাইরুল ইসলামের; যা তার ভাই সাইফুল পরিচালনা করেন বলে অভিযোগ রয়েছে। তার পরিবারের সদস্যদের ব্যবহারের জন্য রয়েছে একাধিক গাড়ি। ওসি সাইরুল বেনামে কুমিল্লায় দুটি পেট্রোল পাম্পেরও মালিক বলে উল্লেখ করা হয়েছে দুদকে যাওয়া ওই অভিযোগে। দুদক কর্মকর্তাদের ধারণা, ওসি সাইরুলের যেসব সম্পদের তথ্য তাদের হাতে আছে, তার বাইরেও অনেক সম্পদ রয়েছে। চট্টগ্রাম নগরের বায়েজিদ বোস্তামী থানাধীন হিলভিউ হাউজিং সোসাইটির এক নম্বর সড়কে হিলভিউ টাওয়ারের তৃতীয় তলার একটি ফ্ল্যাটে থাকেন ওসি সাইরুল; ওই ফ্ল্যাটটি তিনি কিনেছেন বলে ধারণা করছেন দুদক কর্মকর্তারা। সত্যতা যাচাইয়ে এসব বিষয়ে প্রাথমিক অনুসন্ধান করছে দুদক। দুদকে জমা পড়া অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে, সাইরুল ইসলামের একান্ত অনুগত কিছু পুলিশ সদস্য রয়েছেন; ওসি সাইরুলের যে থানায় যোগ দেন তাদেরও একই থানায় বদলি করে নিয়ে যান। এই পুলিশ সদস্যরা ওসি সাইরুলের ‘টাকা আয়ের মেশিন’ হিসেবে কাজ করেন বলে দুদকে অভিযোগ করেছেন আয়শা আকতার কাকলী। তিনি দুদককে আরো তথ্য দিয়েছেন, বোয়ালখালী থানায় ওসি হিসেবে যোগ দেয়ার দিনই নিজের কক্ষে ব্যক্তিগত খরচে শীততাপ নিয়ন্ত্রিত যন্ত্র স্থাপন করেন সাইরুল ইসলাম। বোয়ালখালীর সিও অফিসের মীর পাড়া সড়কে একটি ফ্ল্যাট ভাড়া নিয়েছেন তিনি; সেখানেও লাগিয়েছেন শীততাপ নিয়ন্ত্রিত যন্ত্র। অভিযোগের বিষয়ে বোয়ালখালী থানার ওসি সাইরুল ইসলাম সংবাদ মাধ্যমকে বলেন, এগুলো ভিত্তিহীন অভিযোগ। এগুলো করে কি লাভ? এ অভিযোগগুলোর কোন সত্যতা নেই। আমার ব্যক্তিগত, পারিবারিক সম্পদ থাকতে পারে না? এটা কী কথাবার্তা। দুদকের চট্টগ্রাম বিভাগীয় পরিচালক মো. আবদুল করিম বলেন, ওসি সাইরুলের বিরুদ্ধে উঠা অভিযোগ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। সাইরুলের বিরুদ্ধে আরো কোন অভিযোগ থাকলে দুদককে সরবরাহ করার জন্য তিনি আহ্বান জানিয়েছেন। প্রসঙ্গত গত বছরের সেপ্টেম্বরের শুরুতে বোয়ালখালী থানায় ওসি হিসেবে যোগ দেন সাইরুল ইসলাম। এর আগে ২০১৫ সালে নগরের চান্দগাঁও থানায় ওসি সাইরুলের দায়িত্ব পালনকালে তার বিরুদ্ধে ফাঁদে ফেলে নিরীহ মানুষের কাছ থেকে টাকা আদায়, মাদক দিয়ে মামলায় জড়ানো, টাকার বিনিময়ে অব্যাহতি দেয়া, দুর্ব্যবহার, ধরে নিয়ে গুলি করাসহ বেশকিছু অভিযোগ ওঠে। এর আগে গত বছরের ২৩ সেপ্টেম্বর ‘সরকারি গাড়ি নয়, কর্মস্থলে ব্যক্তিগত গাড়িতে ঘোরেন ওসি!’ শিরোনামে একটি বিশেষ সংবাদ প্রকাশ করে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম। এতে উল্লেখ করা হয়, বোয়ালখালী থানার নতুন ওসি সাইরুল ইসলাম সরকারি গাড়ির পরিবর্তে ব্যক্তিগত বিলাসবহুল গাড়ি ব্যবহার করছেন। ওই প্রতিবেদনে ক্ষুব্ধ হয়ে গত বছরের ২৫ সেপ্টেম্বর একুশে পত্রিকা নামে একটি পত্রিকার সম্পাদক আজাদ তালুকদারের বিরুদ্ধে নিজের থানায় ‘সাধারণ ডায়েরি’ (জিডি) করেন বোয়ালখালী থানার ওসি সাইরুল ইসলাম। এদিকে ওসি সাইরুল ইসলামের পরিবারের সদস্যদের খোজ খবর নিয়ে জানা গেছে- পরিবারের অধিকাংশ সদস্যই বিলাশবহুল জীবন যাপনে অভ্যস্ত হয়ে গেছেন। কিন্তু সামান্য বেতনে পুলিশের কনস্টবল পদে চাকরি শুরু করে তাদের এত টাকা কোথা থেকে এলো এ নিয়ে স্থানীয়দের মধ্যে রয়েছে অনেক কানাঘুষা। তার ভাই সাইফুল ইসলাম এক সময় খালি হাতে ঢাকায় গিয়ে ট্রাকের ড্রাইভারি করে সংসার চালাতো। আজ তিনি কোটি কোটি টাকার সম্পদের মালিক। মাগুরার ভায়নার মোড় ও যশোর সড়কের মঘি তে প্রেট্রোল পাম্প, শহরে একাধিক ব্যবসা, ঢাকায় প্রায় ১শ কভার্ড ভ্যান এর ব্যবসাসহ নামে বেনামে কোটি কোটি টাকার সম্পদ এর উৎস নিয়ে স্থানীয়দের মধ্যে রয়েছে ব্যাপক সন্দেহ। এসব সম্পদের পেছনে ওসি সাইরুল ইসলাম এর অবৈধ টাকার লগ্নি থাকতে পারে বলেও মনে করেন তারা। দুদক এর মাধ্যমে এগুলির সঠিক তদন্ত সম্পন্ন হলে বেরিয়ে আসবে আরও বড় একটি দূর্ণীতির চিত্র বলে মনে করেন মাগুরার সচেতন মহল। এদিকে নিজের অনৈতিক কর্মকা- আড়াল করতে ক্ষমতার অপব্যবহার করে ওসি সাইরুলের জিডি করায় সে সময় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান চট্টগ্রাম প্রেসক্লাব, চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়ন ও বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ। জানতে চাইলে পুলিশের চট্টগ্রাম রেঞ্জের উপ-মহাপরিদর্শক (ডিআইজি) খন্দকার গোলাম ফারুক বলেন, অভিযোগের সত্যতা থাকলে ওসি রসাইরুলের বিদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনী ব্যবস্থা নেওয়ার এখতিয়ার দুদকের রয়েছে। এর বাইরে আমরাও অভিযোগগুলো খতিয়ে দেখবো। সত্যতা পেলে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেবো।

Print Friendly, PDF & Email
মনিরামপুরে বাল্য বিয়ের অনুষ্ঠান ভন্ডুল : কনের পিতার ২০ হাজার টাকা জরিমানা
বাজেটে গরীব দুঃখীদের ভাগ্য উন্নয়নে প্রকল্প গ্রহন করেছে প্রতিমন্ত্রী
অভয়নগরে আলোচিত সাগর হত্যা মামলার বাদীকে হুমকি : থানায় অভিযোগ
ঝিনাইদহের কালিগঞ্জে ড্রাগনসহ দেশি-বিদেশী ফলের চাষে উদাহরণ সৃষ্টি করেছে সোবাহান
সমাজ থেকে অশুভ শক্তি ঘুষ ও দুর্নীতি বিতাড়িত করতে হবে-এমপি বাবু
কেশবপুরে ২ মাসেও অপসারণ হয়নি জান্নাতুল মাওয়ার নকশা বহির্ভূত অংশ
বাল্য বিয়ে দিবেন যারা তাদের জন্য রয়েছে শাস্তির ব্যবস্থা- বিভাগীয় কমিশনার
ঝিকরগাছায় কপোতক্ষ নদ যেন ময়লা-আর্বজনার ভাগাড়
নতুন ছবি নিয়ে আশাবাদি মাহি
পুরুষের শক্তি বাড়ায় যে ফল
যশোরে দুই বোমাবাজ গ্রেফতার : ১০টি হাত বোমা উদ্ধার
খাদ্য কর্মকর্তা বদরুলের যশোরে রহস্যজনক মৃত্যু : শোক
রোহিঙ্গা ইস্যুতে মিয়ানমারের পাশে আছে চীন
‘প্যাশন’ থাকবে তো ডমিঙ্গোর?
মিয়ানমারকে বিচারের মুখোমুখি করতে তৎপর জাতিসংঘ
সাতক্ষীরা সীমান্তে বিএসএফ’র গুলিতে ৫ বাংলাদেশি আহত : বিজিবি’র অস্বীকার
ভগবান শ্রী কৃষ্ণ দুষ্টকে দমন করে শিষ্টকে পালন করেছিলেন- রণজিত রায় এমপি
সাতক্ষীরায় ১৪ মাদক মামলার আসামির গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার
সাতক্ষীরায় তাবুতে ঢুকে বিষধর সাপের ছোঁবল : বেঁদে দম্পত্তির মৃত্যু
মাগুরায় ছাত্রীকে আটকে রেখে প্রেম নিবেদন : অধ্যক্ষের ১ বছরের কারাদন্ড
কর্ণফুলীর তলদেশে পৌঁছে গেছে টানেল বোরিং মেশিন : ফোঁড় কাটছে বঙ্গবন্ধু টানেল
আইভী রহমানের ১৫তম মৃত্যুবার্ষিকী
যশোরের ৬টির মধ্যে ৪টিতে আসছেন বর্তমান এমপি
অভিযোগ বাক্স ঝুঁলিয়েছেন এমপি তন্ময় : আতংকে মাদক সিন্ডিকেট
নওয়াপাড়ার ধোপাদী গ্রামে ৩ ইভটিজারকে গণধোলাই
সিপাই থেকে ওসি হয়ে শতকোটি টাকার পাহাড়! দুদকে অভিযোগ
নিষিদ্ধ ঘোষিত এনার্জি ড্রিংক্স
রাজগঞ্জে কাজীকে ৬ মাসের জেল, মেয়ের পিতা চাচা ও স্বামীকে জরিমানা
পথ দেখালো মডেল স্কুল :অনুসরণ করলো আল হেলাল: নওয়াপাড়ায় গ্রীষ্মকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় আবারও সংঘর্ষ : নদী সাঁতরে প্রাণ রক্ষার চেষ্টা
নওয়াপাড়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় প্যানেল মেয়র রবিন অধিকারী ব্যাচাসহ ৪ জন আহত
 চোখের জল ফেলবেন নওয়াপাড়া শংকরপাশা সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের অফিস সহকারী সরোয়ার!
নওয়াপাড়া কলেজের স্বর্ণযুগ : ডাক্তারী পড়ার সুযোগ পেলো ৬ মেধাবী মুখ
অতিরিক্ত সচিব হলেন ঝিকরগাছার কৃতি সন্তান আব্দুল বারিক
এমপি কাজী নাবিল আহমেদের হাতের ছোঁয়ায় চাঁচড়া ইউনিয়নে ব্যাপক উন্নয়ন
অভয়নগরে কলেজ ছাত্রীকে স্কুল ছাত্রের ইভটিজিং : কারাদন্ড
নওয়াপাড়ায় মাছ বাজারে ১ কেজি বাটখারার ওজন ৮শ’ গ্রাম :
গুজবে কান না দিয়ে শেখ হাসিনার প্রতি আস্থা রাখুন-নিরাশ হবেন না রনজিত এমপি
নওয়াপাড়ায় ফার্মেসিতে নকল ওষুধ বিক্রি হচ্ছে !
বাঘারপাড়ার যুবলীগ নেতা তরিকুলের লাশ নড়াইলে উদ্ধার : প্রতিবাদে যশোর-নড়াইল সড়ক অবরোধ
অভয়নগরে ভাজা বিক্রেতার ছুরিকাঘাতে যুবলীগ কর্মী খুন
খুলনায় সাইবার ক্রাইম গ্রুপের হোতারা প্রকাশ্যে : আতঙ্কে পেশাজীবী মহল
ডিসেম্বরেই চালু হচ্ছে অভয়নগরবাসীর স্বপ্নের ভৈরব সেতু!

ই-পত্রিকা-কাগজে যেমন অনলাইনে তেমন

ePaper

আর্কাইভ

আগষ্ট ২০১৯
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« জুলাই    
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০৩১  
প্রয়োজনীয় নাম্বার

অভয়নগর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা : ০১৭১৭৮১৩৩৪৪

নওয়াপাড়া রেলওয়ে মাষ্টার : ০১৭১৮৫৮১০৯৪

হাইওয়ে থানা ওসি : ০১৭৬৯৬৯০৪৫৯

UNO অভয়নগর : ০১৭৩৩০৭৪০৩৫

অভয়নগর থানা : ০১৭১৩ ৩৭৪১৬৭

ফায়ার সার্ভিস : ০১৭৩২ ৫৫০৪৬০

জাতীয় জরুরী সেবা : ৯৯৯

খুলনা বিভাগীয় এর আরও খবর