আজ শনিবার ৮ই আগস্ট, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ ভোর ৫:৪০

add

ঝিকরগাছায় অযত্নে আর অবহেলায় রয়েছে বঙ্গবন্ধু স্মৃতিফলক

আমিরুল ইসলাম (জীবন), বাঁকড়া (ঝিকরগাছা)
প্রকাশিত: মার্চ ৭, ২০২০ সময় : ০০:২৮:৩৬

অযত্নে আর অবহেলায় রয়েছে যশোরের ঝিকরগাছায় বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিফলক, যা ১৯৯৭ সালে যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলার শংকরপুর ইউনিয়নের নায়ড়া গ্রামে স্থাপন করা হয়। ১৯৫৪ সালে যুক্তফ্রন্টের নির্বাচনী প্রচারণায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান নায়ড়া গ্রামে এক নির্বাচনী সভায় আসেন এবং জনসভায় বক্তব্য প্রদান করেন।

 

 

পরে এলাকাবাসীর দাবির প্রেক্ষিতে জনসভাস্থলে একটি স্মৃতিফলক তৈরি করা হয়। এলাকাবাসী জানান, ঝিকরগাছা উপজেলায় ১৯৫৪ সালের নির্বাচনে বঙ্গবন্ধু একমাত্র জনসভা করেছিলেন নায়ড়া গ্রামে। তিনি পায়ে হেঁটে ও বাইসাইকেল চালিয়ে জনসভাস্থলে আসেন। বঙ্গবন্ধুর স্মৃতি বিজড়িত জায়গাটি ভবিষ্যৎ প্রজন্মের কাছে তুলে ধরার জন্য একটি নামফলক তৈরি করার দাবি ছিল এলাকাবাসীর।

 

 

সেই দাবির প্রেক্ষিতে ১৯৯৭ সালে তৎকালীণ আওয়ামী লীগ সরকারের হুইপ ও যশোর-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম সরকারি অর্থায়নে একটি নামফলক তৈরি করেন। তারপর থেকে ফলকটির প্রতি আর কেউ নজর দেয়নি। আওয়ামী লীগ সরকার একটানা কয়েক বার ক্ষমতায় আছে কিন্তু উন্নয়ন তো দূরের কথা কোন দিন দেখতেও আসেনি।

 

 

ফলে অযত্নে আর অবহেলায় থাকা স্মৃতিফলকটি যত্ন এবং রক্ষণাবেক্ষণ প্রয়োজনে পুননির্মাণ করার দাবি তুলেছেন এলাকাবাসী। নায়ড়া গ্রামের বাসিন্দা ৮১ বছরের বৃদ্ধ খন্দকার জালাল উদ্দীন সেদিন বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে ছিলেন। স্মৃতিচারণকালে তিনি বলেন, ১৯৫৪ সালের ২৭ এপ্রিল বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব যুক্তফ্রন্টের নির্বাচনী প্রচারণায় ঝিকরগাছা উপজেলার নায়ড়া গ্রামে আসেন।

 

 

সেদিন বঙ্গবন্ধুর সাথে ছিলেন যুক্তফ্রন্টের প্রার্থী মশিউর রহমান। রাস্তা কাঁচা তাই বঙ্গবন্ধুর বহনকারী প্রাইভেটকার সামটা গ্রামে রেখে নায়ড়া গ্রামের খন্দকার বজলুর রহমানের গাড়িতে করে বঙ্গবন্ধু ও তার সকল সঙ্গীদের নিয়ে আসার ব্যবস্থা করেন। নায়ড়া গ্রামে পৌঁছানোর পর বঙ্গবন্ধু দিঘিতে ওজু করে নায়ড়া গ্রামে অবস্থিত হযরত শাহ সুফি সুলাইমান (র.) এর মাজার জিয়ারত করেন এবং মসজিদে জোহরের নামাজ আদায় করার পর খন্দকার বজলুর রহমানের বাড়িতে দুপুরের খাবার খান।

 

 

 

সেদিন বিকেলে নায়ড়া বাজারে এক জনসভায় বঙ্গবন্ধু বক্তব্য রাখেন। ওই জনসভা পরিচালনা করেন, তখনকার তরুণ নেতা জেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য, সাবেক প্রাদেশিক পরিষদ সদস্য, গণপরিষদ সদস্য, স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম জাতীয় সংসদ সদস্য, বঙ্গবন্ধুর সাবাস চেয়ারম্যানখ্যাত আবুল ইসলাম। এটি এখন গ্রামবাসীর স্মৃতির পাতায় ভেসে বেড়ায়।

 

 

 

বঙ্গবন্ধুর নায়ড়ায় আগমনের স্মৃতি আগামী প্রজন্মের কাছে সহজে তুলে ধরতে এবং বঙ্গবন্ধুর নামে স্থাপিত বর্তমান অবহেলায় অযত্নে থাকা স্মৃতি ফলকটি রক্ষণাবেক্ষণ প্রয়োজনে পুননির্মাণ এখন সময়ের দাবি। এ বিষয়ে শংকরপুর ইউপি চেয়ারম্যান নিছার উদ্দীন বলেন, আগামী ইউনিয়ন পরিষদে মিটিংয়ে আমি বিষয়টি অবশ্যই তুলবো। এটি আমার একার সিদ্ধান্ত নয়।

 

মিটিংয়ে সর্বসম্মতিক্রমে সিদ্ধান্ত গ্রহণপূর্বক ব্যবস্থা করার চেষ্টা করবো। শংকরপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যাপক শরিফুল ইসলাম বলেন, আমরা গর্বিত বঙ্গবন্ধু নায়ড়া গ্রামে তার পদধুলি দিয়েছেন। বঙ্গবন্ধু আজ নেই তার স্মৃতি আকড়ে আছি আমরা। আওয়ামীলীগ সরকার বারবার ক্ষমতায় এসেছে কিন্তু কেউ এই স্মৃতি ফলকের কথা একটি বার ও ভাবিনি।

 

 

 

ঝিকরগাছা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (অতিরিক্ত দায়িত্ব) ডাক্তার কাজী নাজিব হাসান জানান, বিষয়টি সম্পর্কে কেউ জানায়নি। আপনার কাছ থেকে জেনে অবগত হলাম। খোঁজ-খবর নিয়ে উপজেলা প্রশাসনের মাধ্যমে রক্ষণাবেক্ষণের ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ঝিনাইদহে জাতীয় পাট দিবস উপলক্ষে র‌্যালী ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত
শ্রেষ্ঠত্বের ধারাবাহিকতা বজায় রেখে আবারও সেরা পাটকলের সম্মাণনা পেলো আকিজ জুট মিল
করোনায় আক্রান্ত রামেন্দু-ফেরদৌসী দম্পতি
পরিচালক সোহানুর রহমান সোহান করোনাভাইরাসে আক্রান্ত
ভারতের অভিনয়জগতে আরও দুই আত্মহত্যার ঘটনা!
মাস্কের দাগ থেকে ত্বকের সুরক্ষায় যা করবেন
শ্রীলঙ্কা সফরে টেস্টের সঙ্গে ৩ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ!
অভয়নগরে রোটার‌্যাক্ট জোনাল ক্লাবের প্রীতি ফুটবল ম্যাচ অনুষ্ঠিত
মধুসূদন সংস্কৃতি বিশ্ববিদ্যালয় বাস্তবায়ন কমিটির সাথে এমপি শাহিন চাকলাদারের মতবিনিময় সভা
ঝিকরগাছায় রাস্তা থেকে ধরে নিয়ে স্বামী পরিত্যক্তাকে গণধর্ষণ : আটক ৪
সড়কে শেষ হয়ে গেল পর্বতারোহী রেশমার স্বপ্ন
এমপি মাশরাফীর শোক
ওসি প্রদীপসহ ৭ পুলিশ সদস্য বরখাস্ত
মতামত : তাঁর মনে দৃঢ় বিশ্বাস ছিল, বাংলার মানুষ তাকে মারতে পারে না
মুজিব বর্ষের ভেতরেই বঙ্গবন্ধুর খুনিদের ফিরিয়ে আনা হবে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী
বৈরুতে বিস্ফোরণের ঘটনায় সরকারবিরোধী বিক্ষোভ-সংঘর্ষ
একদিনে ভারতে করোনাভাইরাসে শনাক্ত ৬২ হাজার
হাসপাতালে অভিযানের আগে অনুমতি ‘ছোট চোর ধরতে বড় চোরের সম্মতি : হাবিব উন নবী খান সোহেল
পল্লবীতে দুই কোটি টাকার হিরোইনসহ নারী আটক
ভারতের কেরালায় বিমান দুর্ঘটনায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৬
সিনহা নিহতের ঘটনায় কাউকেই ছাড় দেয়া হবে না : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
কাশিমপুর কারাগার থেকে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত কয়েদি নিখোঁজ
‘গোয়াল ঘর আপনার গরু আমাদের’ লিখে গরু চুরি : গণপিটুনিতে নিহত তিন : আটক এক
যশোরের ৬টির মধ্যে ৪টিতে আসছেন বর্তমান এমপি
অভিযোগ বাক্স ঝুঁলিয়েছেন এমপি তন্ময় : আতংকে মাদক সিন্ডিকেট
করোনা ভাইরাস থেকে মুক্তির লক্ষে বিশেষ দোয়া ও লিফলেট বিতরণ করলেন- নওয়াপাড়ার গদ্দীনশীন পীর
সিপাই থেকে ওসি হয়ে শতকোটি টাকার পাহাড়! দুদকে অভিযোগ
কোথাও ঠাঁই নেই : কবরস্থানে মা- ছেলের বসবাস
অভয়নগরে চিকিৎসকের স্ত্রীর আত্মহত্যা
নওয়াপাড়ার ধোপাদী গ্রামে ৩ ইভটিজারকে গণধোলাই
যশোরের নতুন পুলিশ সুপার হলেন আশরাফ হোসেন
লোহাগড়া হাসপাতাল থেকে ডেঙ্গু রোগীকে বের করে দিয়েছেন সেবিকা কল্পনা ও সাধনা!
বাঘারপাড়ায় ধর্ষণের পর হত্যা করে জয়নবের লাশ ঘেরে ফেলেছে হাফেজ মুজিবুল
নিষিদ্ধ ঘোষিত এনার্জি ড্রিংক্স
যশোর শিক্ষাবোর্ডের সাড়ে ২৯ লাখ টাকা অপচয় বন্ধ করে দিলেন ড. মোল্লা আমীর হোসেন
রাজগঞ্জে কাজীকে ৬ মাসের জেল, মেয়ের পিতা চাচা ও স্বামীকে জরিমানা
কিস্তি দিতে না পারায় ধান ও পালিত শুকর নিয়ে গেছে সমিতির লোকেরা!
নওয়াপাড়ায় মাছ বাজারে ১ কেজি বাটখারার ওজন ৮শ’ গ্রাম :
ফুলতলায় র‌্যাবের অভিযানে অস্ত্র ও গোলাবারুদসহ অভয়নগরের ৩ জন আটক
পথ দেখালো মডেল স্কুল :অনুসরণ করলো আল হেলাল: নওয়াপাড়ায় গ্রীষ্মকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় আবারও সংঘর্ষ : নদী সাঁতরে প্রাণ রক্ষার চেষ্টা
অভয়নগরে এই প্রথম করোনা রোগী শণাক্ত
 চোখের জল ফেলবেন নওয়াপাড়া শংকরপাশা সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের অফিস সহকারী সরোয়ার!

ই-পত্রিকা-কাগজে যেমন অনলাইনে তেমন

ePaper

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১  
প্রয়োজনীয় নাম্বার

অভয়নগর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা : ০১৭১৭৮১৩৩৪৪

নওয়াপাড়া রেলওয়ে মাষ্টার : ০১৭১৮৫৮১০৯৪

হাইওয়ে থানা ওসি : ০১৭৬৯৬৯০৪৫৯

UNO অভয়নগর : ০১৭৩৩০৭৪০৩৫

অভয়নগর থানা : ০১৭১৩ ৩৭৪১৬৭

ফায়ার সার্ভিস : ০১৭৩২ ৫৫০৪৬০

জাতীয় জরুরী সেবা : ৯৯৯

দেশের খবর এর আরও খবর