আজ বৃহস্পতিবার ২১শে নভেম্বর, ২০১৯ ইং রাত ৩:৩৭

add

ঈদ-ই মিলাদুন্নবী (সা:) এর প্রকৃত তাৎপর্য

নওয়াপাড়া ডেস্ক
প্রকাশিত: November 10, 2019 সময় : 00:21:12

মিলাদ ও সিরাত দুটি আরবি শব্দ। মিলাদ অর্থ জন্ম আর সিরাত শব্দের অর্থ জীবনচরিত। সুতরাং মিলাদুন্নবী (সা.) অর্থ নবীজির জন্ম আর সিরাতুন্নবী (সা.) এর অর্থ নবীজির জীবনচরিত। নবীজির শুভ বেলাদাত বা জন্মকে স্মরণ করে যে অনুষ্ঠান হয় তাকে মিলাদুন্নবী (সা.) মাহফিল বলা হয়। আর নবীজির জীবনচরিত আলোচনার জন্য যে অনুষ্ঠান তাকে সিরাতুন্নবী (সা.) মাহফিল বলা হয়।

মিলাদুন্নবী (সা.) শিরোনামে যে মাহফিল অনুষ্ঠিত হয় সেখানে যে শুধুই রাসূলে পাক (সা.) এর জন্মবৃত্তান্ত আলোচনা হয় তা নয়, বরং সেখানে তাঁর মিলাদসহ জীবন চরিতের বিভিন্ন দিক আলোচিত হয়। একইভাবে সিরাতুন্নবী (সা.) শিরোনামে যে মাহফিল হয় সেখানে রাসূলে পাক (সা.) এর জন্মবৃত্তান্তকে বাদ দিয়ে জীবনচরিত আলোচিত হয় না বরং জন্ম থেকে শুরু করে পুরো জীবনীই আলোচনা করা হয়। তবে নাম করণের ক্ষেত্রে এবং বিশেষদিন পালন করা নিয়ে ভিন্নমত রয়েছে।

শুধুমাত্র ১২ই রবিউল আওয়াল এটা নিয়ে আলোচনা হতে হবে এটাই একটি ভ্রান্ত ধারনা, প্রকৃত পক্ষে প্রতিটি ঈমানদার হযরত মোহাম্মদ (স:) এর সিরাত তথা তার জীবনাদর্শ বাস্তব জীবনে প্রতিফলন ঘটিয়ে তাকেই একমাত্র নেতা হিসেবে মেনে নিতে হবে। একজন মুসলমানের ঈমানের দাবি হলো প্রিয়নবী (সা.) এর স্মরণে তাঁর গোটা জীবনকে ভরিয়ে রাখা। এশকে রাসূল (সা.) যার মধ্যে সক্রিয় সে ব্যক্তি শয়নে-স্বপনে, নীরবে-সরবে, অন্তরে-বাইরে, কথায়-কাজে, লেখনীতে-বক্তৃতায়, একাকী-মাহফিলে সর্বদাই তাঁর প্রিয়তম রাসূলের স্মরণে ব্যাপৃত থাকে। নবীজিকে স্মরণ করা, তাঁকে ভালোবাসা উম্মতের জন্য ইবাদত। তা যদি নাও হতো আর এর ফজিলতের ঘোষণা নাও থাকত তারপরও প্রকৃত মোমিন তাকে স্মরণ না করে থাকতে পারত না।

নবীজির স্মরণকে বিশেষ কোনো পদ্ধতির মধ্যে সীমিত করা সঙ্কীর্ণ মানসিকতার পরিচায়ক। তবে একথাও অনস্বীকার্য যে, তাকে স্মরণ করতে গিয়ে এমন কিছু করা যা তার শিক্ষা ও আদর্শের পরিপন্থী অথবা এমনভাবে স্মরণ করা যাতে বিজাতীয় কৃষ্টি-কালচার অনুসরণ করা হয়, এটা নিঃসন্দেহে অনুমোদনযোগ্য নয়। এটা প্রকৃতপক্ষে তার স্মরণ নয়। কারণ তাঁর স্মরণ তো তার ভালোবাসাকে জাগরুক করবে, তার নীতি-আদর্শের প্রতি শ্রদ্ধাবোধ জাগিয়ে তুলবে। তার অনুসরণ অনুকরণে ব্যক্তিকে উদ্বুদ্ধ করবে। যে স্মরণের মধ্যে এটা অনুপস্থিত সে স্মরণ নিছক মেকি এবং প্রহসনের নামান্তর।

সুতরাং রাসূলে পাক (সা.) এর স্মরণ, তার মিলাদুন্নবী (সা.) অনুষ্ঠান আর সিরাতুন্নবী (সা.) অনুষ্ঠান যেভাবেই হোক না কেন তা যেন মূল উদ্দেশ্যকে ব্যাহত না করে সে ব্যাপারে আমাদের সজাগ ও সতর্ক থাকতে হবে। মিলাদুন্নবী আর সিরাতুন্নবী নিয়ে দ্বন্দ্ব করা কি রাসূলে পাক (সা.) এর শিক্ষা ও আদর্শ, নাকি তাঁর স্মরণ ও ভালোবাসার প্রমাণ? মিলাদুন্নবী বা সিরাতুন্নবী (সা.) যে নামেই হোক না কেন, আমাদের লক্ষ্য থাকতে হবে রাসূল (সা.) এর আদর্শ জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে অনুসরণের জ্ঞান আহরণ এবং তা বাস্তব জীবনে প্রতিফলিত করা।

রাসূল (সা.) এরশাদ করেছেন, ‘তোমাদের মধ্যে কেউ ততক্ষণ পর্যন্ত ঈমানদার হতে পারবে না, যতক্ষণ আমি (রাসূল) তার কাছে তার বাবা-মা, সন্তান-সন্ততি ও দুনিয়ার সবকিছুর চেয়ে প্রিয়তর না হই।’ নবীজির ভালোবাসা লাভ করতে হলে তাঁকে ভালোভাবে জানতে হবে। তিনি যে মহান আদর্শ নিয়ে বিশ্বমানবতার মুক্তিদূত হিসেবে প্রেরিত হয়েছিলেন, তা হৃদয়ঙ্গম করতে হবে। তবেই তাঁকে ভালোভাবে জানতে পারব এবং তখনই তাঁর প্রতি আমাদের ভালোবাসা যথার্থ হবে। এজন্যই প্রয়োজন তার জীবনী বা সিরাত নিয়ে আলোচনা।

Print Friendly, PDF & Email
খুলনায় যুবককে কুপিয়ে হত্যা
কেশবপুরে পানির বালতিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু
বেনাপোল সীমান্তে অনুপ্রবেশকালে পাচারকারীসহ আটক ৫৪
বাস-ট্রাক ধর্মঘটে অচল যশোর-খুলনাসহ দক্ষিণাঞ্চল : দুর্ভোগে যাত্রীরা
ভাতের সাথে লবণ, নাকী লবণের সাথে ভাত খাবেন?
জম্মু-কাশ্মীরে ৭৬৫ জনকে গ্রেফতার
কেশবপুরে পৈত্রিক ভিটাবাড়ি দখলের চেষ্টা : বাড়িঘর ভাংচুরের অভিযোগ
খুলনা মহানগরের ৩৫নং ওয়ার্ড আ’লীগের সম্মেলন বৃহস্পতিবার
বাগেরহাটে কারা অভ্যন্তরে কয়েদির কাছ থেকে দু’টি মুঠোফোন উদ্ধার
কেশবপুরে স্কুল ছাত্রীর অবৈধ গর্ভপাত : ৫ মাস পর লম্পট বিল্লাল আটক
মাদক মামলায় জামিন পেয়েছে আসিফ আকবর
বাগেরহাটে দূর্বৃত্তদের আগুনে দশটি বৈদ্যুতিক মিটার পুড়ে ছাই
সরকার টেনিস খেলাকে যথাযথ গুরুত্ব দিচ্ছে প্রধানমন্ত্রী
দলে থেকে ছিটকে গেলেন সাইফ
এমপি কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টে ফাইনালে ঝিনাইদহ
বাগআঁচড়ায় ভ্রাম্যমান আদালতের জরিমানা আদায়
কেশবপুরে কাবাডি প্রতিযোগিতায় গড়ভাঙ্গা চ্যাম্পিয়ন
পাইকগাছায় কপোতাক্ষ নদ থেকে শিশুর মৃতদেহ উদ্ধার
শ্রমিকদের উসকানি দেবেন না ওবায়দুল কাদের
শ্যামনগরে বেড়িবাঁধে অবৈধভাবে বসানো হয়েছে পাইপ!
চালকদের মুখে পোড়া মবিল : অ্যাম্বুলেন্সকেও ছাড়েনি শ্রমিকরা
গিলাতলায় নৌকা বাইচ ও সংস্কৃতি উৎসবের উদ্বোধন কাল
যশোরের ৬টির মধ্যে ৪টিতে আসছেন বর্তমান এমপি
অভিযোগ বাক্স ঝুঁলিয়েছেন এমপি তন্ময় : আতংকে মাদক সিন্ডিকেট
সিপাই থেকে ওসি হয়ে শতকোটি টাকার পাহাড়! দুদকে অভিযোগ
নওয়াপাড়ার ধোপাদী গ্রামে ৩ ইভটিজারকে গণধোলাই
লোহাগড়া হাসপাতাল থেকে ডেঙ্গু রোগীকে বের করে দিয়েছেন সেবিকা কল্পনা ও সাধনা!
নিষিদ্ধ ঘোষিত এনার্জি ড্রিংক্স
রাজগঞ্জে কাজীকে ৬ মাসের জেল, মেয়ের পিতা চাচা ও স্বামীকে জরিমানা
পথ দেখালো মডেল স্কুল :অনুসরণ করলো আল হেলাল: নওয়াপাড়ায় গ্রীষ্মকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় আবারও সংঘর্ষ : নদী সাঁতরে প্রাণ রক্ষার চেষ্টা
নওয়াপাড়ায় মাছ বাজারে ১ কেজি বাটখারার ওজন ৮শ’ গ্রাম :
নওয়াপাড়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় প্যানেল মেয়র রবিন অধিকারী ব্যাচাসহ ৪ জন আহত
 চোখের জল ফেলবেন নওয়াপাড়া শংকরপাশা সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের অফিস সহকারী সরোয়ার!
নওয়াপাড়া কলেজের স্বর্ণযুগ : ডাক্তারী পড়ার সুযোগ পেলো ৬ মেধাবী মুখ
এমপি কাজী নাবিল আহমেদের হাতের ছোঁয়ায় চাঁচড়া ইউনিয়নে ব্যাপক উন্নয়ন
বাঘারপাড়ায় ধর্ষণের পর হত্যা করে জয়নবের লাশ ঘেরে ফেলেছে হাফেজ মুজিবুল
অভয়নগরে কলেজ ছাত্রীকে স্কুল ছাত্রের ইভটিজিং : কারাদন্ড
অতিরিক্ত সচিব হলেন ঝিকরগাছার কৃতি সন্তান আব্দুল বারিক
বসুন্দিয়ায় ভৈরব ব্রীজ ঝুঁকিপূর্ণ : কাঁপছে সেঁতু, আতংকে পথচারী ও এলাকাবাসী
অভয়নগরে ব্যবসায়ীর বাড়ির রিজার্ভ ট্যাংকি থেকে রং মিস্ত্রীর গলাকাটা লাশ উদ্ধার
নওয়াপাড়ায় ফার্মেসিতে নকল ওষুধ বিক্রি হচ্ছে !
নওয়াপাড়ায় রং মিস্ত্রী ঠিকাদার হাবিব হত্যার রহস্য উম্মোচন : ঘাতক মামুন আটক

ই-পত্রিকা-কাগজে যেমন অনলাইনে তেমন

ePaper

আর্কাইভ

নভেম্বর ২০১৯
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« অক্টোবর    
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০  
প্রয়োজনীয় নাম্বার

অভয়নগর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা : ০১৭১৭৮১৩৩৪৪

নওয়াপাড়া রেলওয়ে মাষ্টার : ০১৭১৮৫৮১০৯৪

হাইওয়ে থানা ওসি : ০১৭৬৯৬৯০৪৫৯

UNO অভয়নগর : ০১৭৩৩০৭৪০৩৫

অভয়নগর থানা : ০১৭১৩ ৩৭৪১৬৭

ফায়ার সার্ভিস : ০১৭৩২ ৫৫০৪৬০

জাতীয় জরুরী সেবা : ৯৯৯

ধর্ম ও জীবন এর আরও খবর